১৯৯৯ সালের বিশ্বকাপের মঞ্চে ভারতীয় দলের পারফরম্যান্সের ব্যাপারে জেনে নিন

সেপ্টে. 20, 2023

No tags for this post.
Spread the love

Team India. (Photo Source: Twitter)

১৯৯৯ সালের বিশ্বকাপে ভারত সুপার সিক্স থেকে বিদায় নিয়েছিল। ১৯৯২ এবং ১৯৯৬ সালের বিশ্বকাপের পর এই বিশ্বকাপেও ভারতীয় দলকে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন মহম্মদ আজহারউদ্দিন। এটির প্রধান আয়োজক দেশ ছিল ইংল্যান্ড, তবে কয়েকটি ম্যাচ স্কটল্যান্ড, আয়ারল্যান্ড, ওয়েলস এবং নেদারল্যান্ডসেও অনুষ্ঠিত হয়েছিল।

১৯৯৯ সালের বিশ্বকাপের ফাইনালে অস্ট্রেলিয়া এবং পাকিস্তান একে অপরের মুখোমুখি হয়েছিল। এই ম্যাচটি খুব সহজেই জিতে নিয়েছিল অস্ট্রেলিয়া। পাকিস্তান প্ৰথমে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ১৩২ রানে অলআউট হয়ে গিয়েছিল। অস্ট্রেলিয়া ২০.১ ওভারে ২ উইকেটে ১৩৩ রানে পৌঁছনোর মাধ্যমে ম্যাচটিতে জয় পেয়েছিল। এটি ছিল অস্ট্রেলিয়ার দ্বিতীয় বিশ্বকাপের শিরোপা।

১. ভারত বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা (ম্যাচ ২)

IND vs SA. (Photo Source: Twitter)

দক্ষিণ আফ্রিকা এই ম্যাচটিতে ভারতকে ৪ উইকেটে পরাজিত করেছিল। ভারত প্ৰথমে ব্যাটিং করে স্কোরবোর্ডে ৫০ ওভারে ৫ উইকেটে ২৫৩ রান তুলেছিল। সৌরভ গাঙ্গুলী ১৪২ বলে ৯৭ রানের একটি সুন্দর ইনিংস খেলেছিলেন। ল্যান্স ক্লুসেনার ১০ ওভারে ৬৬ রান দিয়ে ৩টি উইকেট শিকার করেছিলেন।

দক্ষিণ আফ্রিকা ১৬ বল বাকি থাকতেই ৬ উইকেটে ২৫৪ রানে পৌঁছে ম্যাচটি জিতে নিয়েছিল। জ্যাক ক্যালিস ১২৮ বলে ৯৬ রানের একটি অসাধারণ ইনিংস খেলেছিলেন এবং ম্যাচসেরার পুরস্কার জিতেছিলেন। জাভাগল শ্রীনাথ ১০ ওভারে ৬৯ রান দিয়ে ২টি উইকেট নিতে সক্ষম হয়েছিলেন।

২. ভারত বনাম জিম্বাবুয়ে (ম্যাচ ৮)

IND vs ZIM. (Photo Source: Twitter)

এই ম্যাচটিতেও ভারত হারের মুখ দেখেছিল। জিম্বাবুয়ে ৫০ ওভারে ৯ উইকেটে ২৫২ রান করতে সক্ষম হয়েছিল। অ্যান্ডি ফ্লাওয়ার এবং গ্রান্ট ফ্লাওয়ার যথাক্রমে ৮৫ বলে অপরাজিত ৬৮ রান এবং ৮৯ বলে ৪৫ রান করেছিলেন। জাভাগল শ্রীনাথ, ভেঙ্কটেশ প্রসাদ এবং অনিল কুম্বলে ২টি করে উইকেট নিয়েছিলেন।

ভারত ২৪৯ রানে অলআউট হয়ে গিয়েছিল এবং মাত্র ৩ রানে ম্যাচটি হেরেছিল। সদাগোপ্পন রমেশ ৭৭ বলে ৫৫ রান করতে সক্ষম হয়েছিলেন। হিথ স্ট্রিক এবং হেনরি ওলঙ্গা ৩টি করে উইকেট পেয়েছিলেন। এই ম্যাচে ম্যাচসেরার পুরস্কার পেয়েছিলেন গ্রান্ট ফ্লাওয়ার।

৩. ভারত বনাম কেনিয়া (ম্যাচ ১৫)

IND vs KEN. (Photo Source: Twitter)

এই বিশ্বকাপে কেনিয়ার বিরুদ্ধে প্ৰথম জয় পেয়েছিল ভারত। প্ৰথমে ব্যাটিং করে স্কোরবোর্ডে ৫০ ওভারে ২ উইকেটে ৩২৯ রান তুলেছিল মহম্মদ আজহারউদ্দিনের নেতৃত্বাধীন দল। সচিন তেন্ডুলকার এবং রাহুল দ্রাবিড় দুজনেই শতরান করেছিলেন। সচিন ১০১ বলে অপরাজিত ১৪০ রান করেছিলেন এবং দ্রাবিড় ১০৯ বলে অপরাজিত ১০৪ রান করতে সক্ষম হয়েছিলেন।

কেনিয়া ৫০ ওভারে ৭ উইকেটে ২৩৫ রানে পৌঁছতে পেরেছিল। স্টিভ টিকোলো ৭৫ বলে ৫৮ রান করেছিলেন। দেবাশিস মহান্তি ১০ ওভারে ৫৬ রানের বিনিময়ে ৪টি উইকেট নিয়েছিলেন। এই ম্যাচটিতে ম্যাচসেরার পুরস্কার জিতেছিলেন সচিন তেন্ডুলকার।

৪. ভারত বনাম শ্রীলঙ্কা (ম্যাচ ২১)

IND vs SL. (Photo Source: Twitter)

এই ম্যাচটিতে ভারত একটি দুর্দান্ত জয় পেয়েছিল। সৌরভ গাঙ্গুলী এবং রাহুল দ্রাবিড়ের ৩১৮ রানের অসাধারণ পার্টনারশিপের হাত ধরে ভারত ৫০ ওভারে ৬ উইকেটে ৩৭৩ রানে পৌঁছেছিল। সৌরভ এবং দ্রাবিড় যথাক্রমে ১৫৮ বলে ১৮৩ রান এবং ১২৯ বলে ১৪৫ রান করেছিলেন। প্রমোদ্যা বিক্রমাসিংহে ৩টি উইকেট পেয়েছিলেন।

শ্রীলঙ্কার ইনিংস ২১৬ রানে শেষ হয়ে গিয়েছিল এবং ভারত ১৫৭ রানে ম্যাচটি জিতে নিয়েছিল। অরবিন্দ দি সিলভা ৭৪ বলে ৫৬ রান করতে সক্ষম হয়েছিলেন। রবিন সিং ৯.৩ ওভারে মাত্র ৩১ রান দিয়ে ৫টি উইকেট শিকার করেছিলেন। সৌরভ গাঙ্গুলীকে এই ম্যাচে ম্যাচসেরার পুরস্কার দেওয়া হয়েছিল।

৫. ভারত বনাম ইংল্যান্ড (ম্যাচ ২৫)

IND vs ENG. (Photo Source: Twitter)

এই ম্যাচটিতে মহম্মদ আজহারউদ্দিনের নেতৃত্বাধীন দল ৬৩ রানে জয় পেয়েছিল। ভারত প্ৰথমে ব্যাটিং করে স্কোরবোর্ডে ৫০ ওভারে ৮ উইকেটে ২৩২ রান করতে সক্ষম হয়েছিল। রাহুল দ্রাবিড় ৮২ বলে ৫৩ রানের একটি গুরুত্বপূর্ণ ইনিংস খেলেছিলেন। সৌরভ গাঙ্গুলী ৫৯ বলে ৪০ রান করেছিলেন। অ্যালান মুল্লালি এবং মার্ক ইলহাম ২টি করে উইকেট শিকার করেছিলেন।

ইংল্যান্ডের ইনিংস মাত্র ১৬৯ রানে শেষ হয়ে গিয়েছিল। সৌরভ গাঙ্গুলী ৮ ওভারে ২৭ রান দিয়ে ৩টি উইকেট তুলে নিয়েছিলেন এবং ম্যাচসেরার পুরস্কার জিতেছিলেন। জাভাগল শ্রীনাথ, দেবাশিস মহান্তি এবং অনিল কুম্বলে ২টি করে উইকেট পেয়েছিলেন।

৬. ভারত বনাম অস্ট্রেলিয়া (সুপার সিক্স – ম্যাচ ১)

IND vs AUS. (Photo Source: Twitter)

এই ম্যাচটিতে ভারত ৭৭ রানে পরাজিত হয়েছিল। অস্ট্রেলিয়া ৫০ ওভারে ৬ উইকেটে ২৮২ রান করতে সক্ষম হয়েছিল। মার্ক ওয়া ৯৯ বলে ৮৩ রানের একটি দারুণ ইনিংস খেলেছিলেন। রবিন সিং ২টি উইকেট পেয়েছিলেন।

ভারত রান তাড়া করতে নেমে ২০৫ রানে অলআউট হয়ে গিয়েছিল। অজয় জাদেজা ১৩৮ বলে অপরাজিত ১০০ রানের একটি অসাধারণ ইনিংস খেলেছিলেন, কিন্তু দলকে ম্যাচটি জেতাতে পারেননি। গ্লেন ম্যাকগ্রা ১০ ওভারে ৩৪ রান দিয়ে ৩টি উইকেট শিকার করেছিলেন এবং ম্যাচসেরার পুরস্কার জিতেছিলেন।

৭. ভারত বনাম পাকিস্তান (সুপার সিক্স – ম্যাচ ৪)

IND vs PAK. (Photo Source: Twitter)

এই ম্যাচটিতে মহম্মদ আজহারউদ্দিনের নেতৃত্বাধীন দল ৪৭ রানে জয় পেয়েছিল। ভারত প্ৰথমে ব্যাটিং করে ৫০ ওভারে ৬ উইকেটে ২২৭ রানে পৌঁছতে পেরেছিল। রাহুল দ্রাবিড় ৮৯ বলে ৬১ রানের একটি সুন্দর ইনিংস খেলেছিলেন। ওয়াসিম আকরাম এবং আজহার মাহমুদ ২টি করে উইকেট নিয়েছিলেন।

পাকিস্তান ৪৫.৩ ওভারে ১০ উইকেটে ১৮০ রান করতে সক্ষম হয়েছিল। ভেঙ্কটেশ প্রসাদ দুর্দান্ত বোলিং পারফরম্যান্সের প্রদর্শন করেছিলেন। তিনি ৯.৩ ওভারে মাত্র ২৭ রান দিয়ে ৫টি উইকেট নিয়েছিলেন এবং ম্যাচসেরার পুরস্কার পেয়েছিলেন।

৮. ভারত বনাম নিউজিল্যান্ড (সুপার সিক্স – ম্যাচ ৮)

IND vs NZ. (Photo Source: Twitter)

এই ম্যাচটিতে ৫ উইকেটে পরাজিত হয়ে ১৯৯৯ সালের বিশ্বকাপের মঞ্চ থেকে বিদায় নিয়েছিল ভারত। প্ৰথমে ব্যাটিং করে স্কোরবোর্ডে ৫০ ওভারে ৬ উইকেটে ২৫১ রান তুলেছিল ভারত। অজয় জাদেজা ১০৩ বলে ৭৬ রান করেছিলেন। ক্রিস কেয়ার্নস ২টি উইকেট নিতে সক্ষম হয়েছিলেন।

নিউজিল্যান্ড ১০ বল বাকি থাকতেই ৫ উইকেটে ২৫৩ রানে পৌঁছে ম্যাচটি জিতে নিয়েছিল। ম্যাট হর্ন এবং রজার টুসে যথাক্রমে ১১৬ বলে ৭৪ রান এবং ৭৭ বলে অপরাজিত ৬০ রান করেছিলেন। দেবাশিস মহান্তি ২টি উইকেট নিয়েছিলেন। টুসে এই ম্যাচে ম্যাচসেরার পুরস্কার জিতেছিলেন।

The post ১৯৯৯ সালের বিশ্বকাপের মঞ্চে ভারতীয় দলের পারফরম্যান্সের ব্যাপারে জেনে নিন appeared first on CricTracker Bengali.

Subscribe to Telegram
শীঘ্রই শুরু হতে যাচ্ছে আইসিসি বিশ্বকাপ! প্রারম্ভিক একচেটিয়া উপহারের জন্য এখনই MCW-তে সদস্যতা নিন!
অ্যাটলেটিকো ডি মাদ্রিদ আনুষ্ঠানিক আঞ্চলিক পার্টনার হিসাবে মেগা ক্যাসিনো ওয়ার্ল্ড (MCW) ঘোষণা করেছে।
বুন্দেসলিগা ইন্টারন্যাশনাল এশিয়ার মেগা ক্যাসিনো ওয়ার্ল্ডের সাথে একটি আঞ্চলিক অংশীদারিত্বে সম্মত হয়েছে
প্রিটোরিয়া ক্যাপিটালস SA20 এর দ্বিতীয় সিজনের জন্য প্রধান অংশীদার হিসাবে মেগা ক্যাসিনো ওয়ার্ল্ডকে ঘোষণা করেছে
Mega Casino World Anrich Nortje কে নতুন ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হিসেবে ঘোষণা করেছে
MCW Sports Joins Gladiators’ Family as Platinum Sponsor for PSL8
MCW Sports - Ambassador